মিথিলা-সৃজিতের রিসেপশনে চাঁদের হাট (ভিডিও)

Spread the love

বাংলাদেশি অভিনেত্রী, সমাজকর্মী রাফিয়াত রশিদ মিথিলার সঙ্গে কলকাতার পরিচালক সৃজিত মুখোপাধ্যায় গাটছড়া বেঁধেছেন গতবছর ৬ ডিসেম্বর। ২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০ অনুষ্ঠিত হয়ে গেল এই দম্পতির বিবাহোত্তর সংবর্ধনা অর্থাৎ (রিসেপশন)। এদিন কলকাতার রাজকুটিরে বসেছিল চাঁদের হাট।

রিসেপশনে মিথিলা পরেছিলেন লাল রঙের শাড়ি। আর তার সঙ্গে মানানসই করে সৃজিত পরেছিলেন আচকান আর ধুতি। জামায় ছিল ঘন সুতোর কাজ। সৃজিত-মিথিলার পোশাকের দায়িত্বভার পড়েছিল ফ্যাশন ডিজাইনার শর্বরী দত্তের ওপর।

এর আগে বিয়েতে লাল জহরকোট এবং কালো পাঞ্জাবিতে সেজেছিলেন সৃজিত। আর মিথিলার পরনে ছিল লাল রঙের জামদানি শাড়ি। কপালে ছিল ছোট্ট টিপ। কানে-গলায় মানানসই গয়না।

ভারতের একাধিক গণমাধ্যমের খবরে বলা হয়, সৃজিত-মিথিলার রিসেপশনের অনুষ্ঠানে রীতিমতো চাঁদের হাট বসেছিল। প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়, সৌরসেনী মৈত্র, গার্গী রায় চৌধুরী, অর্জুন চক্রবর্তী থেকে শুরু করে মাধবী মুখোপাধ্যায়ও এসেছিলেন সেই অনুষ্ঠানে।

মিথিলা বাংলাদেশের মেয়ে। তার বাবার বাড়ির পক্ষ থেকেও হাজির ছিলেন লোকজন। অতিথিদের তালিকায় ছিলেন সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ও।

এদিন রাহুল-সন্দীপ্তাকে একসঙ্গে পার্টিতে আসতে দেখা যায়। অন্যদিকে, প্রিয়াঙ্কা পার্টিতে আসেন তথাগতের সঙ্গে। উপস্থিত ছিলেন পরিচালক রাজ চক্রবর্তীও।

এ ছাড়া রিসেপশন পার্টিতে উপস্থিত ছিলেন অভিনেতা আরিয়ান ভৌমিক, সঙ্গীতশিল্পী জয় সরকার ও সোমলতা আচার্য। আরও ছিলেন তৃণমূলের সাংসদ, অভিনেত্রী মিমি চক্রবর্তী।

রিসেপশনের পার্টি বলে কথা, তাই মেন্যুতেও ছিল এলাহি ছাপ। মেন্যুতে ছিল-

পোলাও, ডাল মাখানি, পনির মাখানি, চিংড়ি মালাইকারি, ঠাকুরবাড়ির কষা মাংসসহ আরও অনেক কিছু। সঙ্গে মিষ্টি দই, নলেন গুড়ের কাঁচাগোল্লা।

উল্লেখ্য, মিথিলা-সৃজিতের আলাপ বেশ কয়েক বছরের। তারপর বন্ধুত্ব দিয়ে শুরু। ধীরে ধীরে গাঢ় হয়েছে প্রেম। বেশ কিছু মাস ধরেই তাদের বিয়ে নিয়ে ইন্ডাস্ট্রিতে নানা গুঞ্জন শোনা যাচ্ছিল। পরে গত ৬ ডিসেম্বর বিয়ে করেন সৃজিত-মিথিলা। বিয়ের পরদিনই এ দম্পতি মধুচন্দ্রিমার উদ্দেশে পাড়ি দিয়েছিলেন সুদূর সুইজারল্যান্ড।