যৌন মিলনের বিস্ময়কর উপকারিতা

Spread the love

যৌন মিলনে লাভ-ক্ষতি নিয়ে আমরা অনেক সময়ই যোগ-বিয়োগ করি। অনেক সময় চিন্তিতও হয়ে যাই। পার্টনারের সঙ্গে মিলনে স্বাস্থ্যগত কোন উপকারিতা আছে কিনা এটা নিয়েও অনেক কথা বলি। এখনও অনেক লোকে বিশ্বাস করেন হস্তমৈথুন স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর। আর নিরাপদ যৌনতা বলে কিছু নেই। আর পর্ন দেখলে সব সময়ই আসক্তি তৈরি হবে। কিন্তু সত্যটি হলো ভিন্ন। অসংখ্য উপায়ে যৌনতা এবং হস্তমৈথুন আপনার শারীরিক ও মানসিক স্বাস্থ্যের উন্নতি ঘটাতে পারে।

যৌনতায় লিপ্ত হয়ে অপরাধবোধে ভোগা উচিত নয়। নিত্যনতুন যৌনতার উদঘাটন করা আপনার জন্য সম্পূর্ণই গ্রহণযোগ্য একটি বিষয়। যৌনতা, উত্তেজনা এবং চূড়ান্ত যৌন সুখানুভূতি আপনার স্বাস্থ্যের উন্নতি করতে পারে।

– যে নারীরা প্রায়ই যৌন মিলন করেন তাদের স্মৃতিশক্তি প্রখর হয়।

– নারীরা যতবেশি যৌন মিলন করেন ততই তারা কোনো শব্দ মুখস্থ করার ক্ষেত্রে ভালো পারফর্মেন্স করেন।

– যৌনতা নারীদের মস্তিষ্কের হিপ্পোক্যাম্পাস এর কোষ বৃদ্ধিতে উদ্দীপনা যোগায়। মস্তিষ্কের এই এলাকাটি স্মৃতি সংরক্ষণের কাজ করে।

– যৌনতা রক্তচাপ ঠিক রাখার জন্য ভালো। ৫৭ থেকে ৮৫ বছর বয়সে যৌনতায় সক্রিয় নারীরা উচ্চরক্তচাপে ভোগেন না।

– বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে যৌনতা আরো রোমাঞ্চকর হয়ে ওঠে।

– যৌনতা আপনার আত্মবিশ্বাস বাড়াতে পারে।

– অপ্রত্যাশিত বা অনাকাঙ্ক্ষিত যৌনতা কমবয়সী নারীদের জন্য ক্ষতিকর, গতানুগতিক এই ধারণাটি ঠিক নয়।

– যেসব কলেজ শিক্ষার্থী যৌন মিলন উপভোগ করেন তাদের আত্মবিশ্বাস বেশি। যদি তারা প্রায়ই তা উপভোগ করে, কিন্তু তারা যদি তা পছন্দ না করে তাহলে প্রায়ই যৌনতা উপভোগ করাটা উপকারী হবে না। এর মানে হলো আপনাকে আপনার আকাঙ্ক্ষাগুলোর ব্যাপারে সৎ হতে হবে।

– হস্তমৈথুনও একইভাবে উপকারী। যে নারীরা প্রায়ই হস্তমৈথুন করেন তারা নিজেদের দেহ সম্পর্কে অনেক বেশি ইতিবাচক অনুভূতি লালন করেন।

তবে অতিমাত্রায় হস্তৗমথুন কোনভাবেই শরীরের জন্য ভালো নয়।