নাদিয়ার ‘দেবরের’ আত্মহত্যা

Spread the love

জনপ্রিয় অভিনেত্রী নাদিয়া আহমেদ বেশ কিছুদিন দেশের বাইরে ছিলেন।

দেশে ফিরে আবারো তিনি তার পেশাগত কাজে ব্যস্ত হয়ে উঠেছেন। এরইমধ্যে নাদিয়া বাস্তবধর্মী একটি গল্পের নাটকের কাজ শেষ করেছেন। নাম ‘দেবর’। নাটকটি রচনা করেছেন ব্যারিস্টার মোস্তাক আহমেদ। নির্মাণ করেছেন সঞ্জয় বড়ুয়া। গত শুক্রবার রাজধানীর উত্তরায় নাটকটির দৃশ্যধারণের কাজ শেষ হয়েছে।

নাদিয়া আহমেদ বলেন, নাটকটির গল্প একেবারেই জীবন ঘনিষ্ঠ। আশা করছি ভালো লাগবে দর্শকের। নাটকটিতে দেবরের চরিত্রে অভিনয় করেছেন নবাগত শাহেদ।

গল্প প্রসঙ্গে সঞ্জয় বড়ুয়া বলেন, একজন দেবরকে তার ভাই-ভাবি খুব ভালোবাসেন। তাকে অনেক কষ্ট করে জায়গা-জমি বিক্রি করে পড়াশোনা করিয়েছেন।
কিন্তু একটি মেয়ের সঙ্গে মাত্র ছয় মাসের সম্পর্কের একটি পর্যায়ে সেই মেয়ের জন্য দেবর আত্মহত্যা করে।

মাত্র ছয় মাসের জন্য একটি মেয়ের সম্পর্ককে জীবনের সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব দিয়ে সবার ভালোবাসাকে উপেক্ষা করে দেবর কীভাবে এমন কাজটি করতে পারে তাই বোধগম্য হয়ে ওঠেনি ভাবি আর ভাইয়ের কাছে। এমন গল্প নিয়েই নির্মিত হয়েছে ‘দেবর’ নাটকটি। এতে ভাবির চরিত্রে অভিনয় করেছেন নাদিয়া আহমেদ।

তিনি আরও জানান, শিগগিরই ইউটিউব চ্যানেল নকশী টিভিতে নাটকটি প্রচার হবে।