আমার সব প্রেমিকই ছিল মিথ্যাবাদী-চরিত্রহীন : পপি

Spread the love

১৯৯৭ সালে মনতাজুর রহমান আকবরের কুলি ছবিতে অভিনয়ের মধ্যদিয়ে ঢাকাই চলচ্চিত্রের আসেন সাদিকা পারভিন পপি। এরপর মেঘের কোলে রোদ, কি যাদু করিলা, গঙ্গাযাত্রা ছায়াছবিতে অভিনয়ের করে শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী হিসেবে তিনবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পেয়েছেন। এবার সামনে আসলো পপির ব্যাক্তিগত কিছু বিষয়। সম্প্রতি একটি জাতীয় দৈনিকের সঙ্গে সাক্ষাতকারে বিস্ফোরক মন্তব্য করেছেন এই অভিনেত্রী। ওই সাক্ষাতকারে পপি নিজের প্রেম ও বিয়ে নিয়ে খোলামেলা কথা বলেছেন।

পপি বলেন, ডজনেরও বেশি ছেলে আমার প্রেমে পড়েছে। কিন্তু আমি এক-দুজনের প্রেমে পড়েছি। তবে প্রেম করতে গিয়ে শুধু ধরাই খেয়েছি। যার প্রেমেই পড়েছি, একসময় দেখেছি সে ভণ্ড, চরিত্রহীন ও মিথ্যাবাদী।

পপি বলেন, সত্যি কথা কী একজন ছেলে, ‘জান খেয়েছ, জান ঘুমিয়েছো’— লিখে একই এসএমএস ১১ জন মেয়েকে পাঠায় এমন ছেলের সঙ্গে বিয়ে করতে চাই না।

তিনি আরও বলেন, সৎ ও যোগ্য পাত্র না পাওয়াতে বিয়ে করিনি। সৎ ও বিশ্বাসযোগ্য ছেলে পাওয়া খুব মুশকিল। তবে খোঁজ চলছে। মিলে গেলে ২০২০ সালেই বিয়ে হয়ে যাবে। যদি এমন না পাই তাহলে আরও ২০ বছর গেলেও বিয়ে না করার আফসোস হবে না।

প্রসঙ্গত, সম্প্রতি সাদেক সিদ্দিকী পরিচালনায় পপি অভিনীত ‘সাহসী যোদ্ধা’ ছবির শুটিং শেষ হয়েছে। এরই মধ্যে নতুন বছরে গ্যাংস্টার নামে নতুন ছবিতে চুক্তি হয়েছেন তিনি। এছাড়া ফিল্ম ক্লাবের নির্বাচনে প্রথম প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেই বিজয়ী হয়েছেন এই চিত্রনায়িকা।